করোনার নতুন ধরন মোকাবেলায় বিশ্বব্যাপী প্রচেষ্টা

২৮ নভেম্বার ২০২১ ০১:৩৭:৩২
করোনার নতুন ধরন মোকাবেলায় বিশ্বব্যাপী প্রচেষ্টা

বেশ কয়েকটি ইউরোপীয় দেশ প্রথম করোনাভাইরাসের প্রবল সংক্রামক নতুন স্ট্রেন আক্রান্ত শনাক্ত করার ঘোষণা দিয়েছে। নতুন ভেরিয়ান্ট ওমিক্রন মোকাবেলায় বিশ্বব্যাপী সরকারগুলো বিধিনিষেধ আরোপ শুরু করেছে।

ব্রিটেন, জার্মানি ও ইতালি প্রথম কোভিড-১৯ এর নতুন ভেরিয়ান্ট আক্রান্ত হওয়ার ঘটনা নিশ্চিত করেছে। ডাচ কর্তৃপক্ষ দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে আগত ৬১ জন যাত্রীকে কোয়ারেন্টাইনে নিয়েছে, এদের করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছে।

দক্ষিণ আফ্রিকা অভিযোগ করে বলেছে, প্রথম স্ট্রেন শনাক্ত হওয়ায় বিমান ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে তাদের শাস্তি দেয়া হচ্ছে। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থ্যা এই ভেরিয়ান্টকে উদ্বেগজনক হিসাবে অভিহিত করেছে। 

মহামারির বিরুদ্ধে বৈশ্বিক প্রচেষ্টা হিসেবে যে কোন হুমকি মোকাবেলায় বিশ্বের বিভিন্ন দেশ আক্রান্ত অঞ্চলের সঙ্গে ভ্রমণ সীমাবদ্ধ করতে শুরু করেছে।

ব্যাপক মিউটেশনের মাধ্যমে পরিবর্তিত এই স্ট্রেনের হুমকি শনাক্ত করতে বিজ্ঞানীরা প্রাণপণ চেষ্টা চালাচ্ছেন, বিশেষ করে এই স্ট্রেন বিদ্যমান ভ্যাকসিনের কার্যকারিতা এড়াতে পারে কিনা, সেটি যাটাই করে দেখার চেষ্টা করছেন। এই স্ট্রেন প্রবল শক্তিশালী ডেল্টা ভেরিয়ান্টের চেয়ে আরো বেশী সংক্রামক, সেটি ইতোমধ্যে প্রমাণিত হয়েছে।

যাত্রীরা মরিয়া হয়ে জোহানেসবার্গ আন্তর্জাতিক বিমান বন্দরে ভিড় করেছে, আকস্মিক আরোপিত নিষেধাজ্ঞায় লোকরা ভ্রমণ বাতিল করে বিমান বন্দরে ছুটে এসেছেন।

ভাইরাসটি ইতোমধ্যে ইউরোপ, হংকং, ইজরায়েল এবং দক্ষিণ আমেরিকাতে ছড়িয়ে পড়েছে, নতুন ওমিক্রন স্ট্রেনে আক্রান্ত দুইজন শনাক্ত হওয়ার পর ব্রিটেন শনিবার আগত যাত্রীদের জন্য বিধিনিষেধ কঠোর করেছে, মাস্ক পড়া বাধ্যতামূলক করেছে।

প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, পুনরায় দোকানপাট এবং পরিবহনে মাস্ক পড়তে হবে। চেক প্রজাতন্ত্রের একটি হাসপাতাল নামিবিয়া থেকে আসা এক মহিলার ওমিক্রন আক্রান্ত হওয়ার খবর নিশ্চিত করেছে।

জার্মানি মিউনিখ বিমান বন্দরে দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে আসা প্রথম দুই জন ওমিক্রন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছে। ইতালি প্রথম মোজাম্বিক থেকে আসা একজনের শরীরে কোভিড নতুন স্ট্রেন শনাক্ত করেছে। তথ্য : বাসস

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন